মোবাইল দিয়ে টাকা ইনকাম || প্রতিদিন 700 টাকা আয় করার উপায়।

বর্তমান সময়ে অনলাইনে মোবাইল দিয়ে টাকা আয় করার অসংখ্য প্ল্যাটফর্ম আছে। তো আপনারা কোন বিষয় নিয়ে অনলাইনের টাকা ইনকাম করতে পারবেন। সে বিষয়ে আমরা বিস্তারিত জানিয়ে দেব।

Advertisement

আমরা আপনাকে জানিয়ে দিব, মোবাইল দিয়ে ঘরে বসে অনলাইনে টাকা ইনকাম করার সারা মাধ্যম গুলো। তাই আপনার হাতে থাকা মোবাইল দিয়ে টাকা ইনকাম করতে চাইলে, আজকের এই আর্টিকেলটি শেষ পর্যন্ত ধৈর্য সহকারে পড়ুন।

মোবাইল দিয়ে অনলাইন ইনকাম

আপনি কি হাতে থাকা মোবাইল দিয়ে অনলাইনে টাকা ইনকাম করতে চান? তো মোবাইল দিয়ে টাকা ইনকাম করার জন্য আপনারা বিভিন্ন সেক্টর পেয়ে যাবেন।

মোবাইল দিয়ে টাকা ইনকাম || প্রতিদিন 700 টাকা আয় করার উপায়।
মোবাইল দিয়ে টাকা ইনকাম || প্রতিদিন 700 টাকা আয় করার উপায়।

তাই আমরা যে বিষয় গুলো আপনাকে বলব। সেগুলো গুরুত্ব সহকারে অনুসরণ করলে, মোবাইল দিয়ে অনলাইনে টাকা ইনকাম করার বিষয়টি অনেক সহজ হয়ে যাবে।

তো চলুন, এমন কিছু অনলাইন ইনকাম বিষয়ে জেনে নেয়া যাক। যা আপনারা নিজের ঘরে বসে মোবাইল দিয়ে করতে পারবেন।

Advertisement

অনলাইনে টাকা আয় করার অ্যাপস

আমাদের বাংলাদেশের অসংখ্য শিক্ষিত বেকার কোন কাজ না পেয়ে অযথাই সময় নষ্ট করছে। তাই আপনি যদি একটি স্মার্টফোন ব্যবহার করেন।

সেই স্মার্ট মোবাইল ফোন ব্যবহার করে, নিজের ঘরে বসে অনলাইনে বিভিন্ন কাজ করে ইনকাম করার সুযোগ পাবেন।

তো আপনার কাছে যদি একটি মোবাইল ফোন থাকে। তাহলে, সেই মোবাইল দিয়ে জনপ্রিয় কিছু অ্যাপস ব্যবহার করে ইনকাম করতে পারবেন।

বর্তমানে অসংখ্য বেকার লোকেরা টাকা ইনকাম করার অ্যাপ গুলো ব্যবহার করে, নিজের ঘরে বসে স্বাধীন ভাবে কাজ করে ইনকাম করছে।

আপনিও যদি তাদের মত টাকা ইনকাম করার অ্যাপ ব্যবহার করতে চান? আমি আপনাকে এমন কিছু মোবাইল অ্যাপ সম্পর্কে বলবো, যেগুলো দিয়ে মোটামুটি ভালো পরিমানে টাকা ইনকাম করার সুযোগ থাকবে।

কোন সফটওয়্যার দিয়ে টাকা ইনকাম করা যায় – আপনি যদি মোবাইল অ্যাপ দিয়ে টাকা ইনকাম করতে চান? তাহলে, অসংখ্য অ্যাপস পেয়ে যাবেন।

যেহেতু অসংখ্য অ্যাপ ব্যবহার করে টাকা ইনকাম করা যায় সেহেতু বিভিন্ন অ্যাপ রয়েছে। যেগুলোতে কাজ করিয়া নেয়ার পর টাকা পেমেন্ট করা হয় না। সেই সকল অ্যাপ এ কাজ করা থেকে বিরত থাকতে হবে।

তবে চিন্তা করবেন না আমি আপনাকে এমন কিছু ট্রাস্টেড মোবাইল অ্যাপ সম্পর্কে বলে দেব যেগুলোতে কাজ করলে আপনারা মোবাইল ব্যাংকিং বিকাশ, নগদ এবং রকেটের মাধ্যমে টাকা উত্তোলন করতে পারবেন।

জেনে নেয়া যাক, অনলাইনে টাকা আয় করার সেরা অ্যাপ গুলো সম্পর্কে।

সেগুলো হলো-

  • Roz Dhan App.
  • Current Rewards.
  • Poll Pay.
  • Meesho App.
  • Pocket Money.

আপনারা উপরে যে অ্যাপসের নাম গুলো দেখতে পারছেন। এগুলোর মাধ্যমে সত্যি সত্যি ইনকাম করতে পারবেন। আর এই সফটওয়্যার গুলোতে তেমন কোন কঠিন কাজ নয়।

আপনারা ছোট ছোট কাজ করেই এই অ্যাপ গুলো থেকে ইনকাম করতে পারবেন।

আর এখানে আপনি যদি সঠিকভাবে প্রতিদিন কাজ করতে পারেন। তাহলে, প্রতিদিন অন্তত  ৫০০ টাকা থেকে 700 টাকা পর্যন্ত ইনকাম করতে পারবেন।

তাই অযথাই সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম গুলোতে ঘোরাঘুরি না করে, নিজের পকেট খরচ চালাতে চাইলে, জনপ্রিয় এন্ড্রয়েড অ্যাপ গুলোতে কাজ করে ইনকাম করা শুরু করে দিতে পারেন।

ফেসবুক থেকে টাকা আয়

আপনারা যারা স্মার্ট ফোন ব্যবহার করেন। তারা অবশ্যই সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম ফেসবুক ব্যবহার করেন।

আর বর্তমানে, ফেসবুক এমন একটি অনলাইন ইনকাম মাধ্যম হয়ে দাঁড়িয়েছে। যেখানে আপনারা ফেসবুক গ্রুপ, ফেসবুক পেজ এবং ফেসবুক একাউন্ট থেকেও মোবাইল দিয়ে কাজ করে ইনকাম করা যায়।

তাই আপনি যদি মোবাইল দিয়ে টাকা ইনকাম করতে আগ্রহে থাকেন। আমি আপনাকে পরামর্শ দিব। এটি ফেসবুক একাউন্টে ফেসবুক পেজ তৈরি করে ইনকাম করতে পারেন।

তবে ফেসবুকে একটি ফেসবুক পেজ তৈরি করলেই ইনকাম হবে না। ফেসবুক পেজ থেকে টাকা ইনকাম করার জন্য আপনাকে, বিভিন্ন ধরনের ভিডিও আপলোড করতে হবে।

বিভিন্ন ক্যাটাগরির ভিডিও আপলোড করার মাধ্যমে, ফেসবুক পেজ মনিটাইজেশন করে ইনকাম করতে পারবেন।

আবার ফেসবুক মনিটাইজেশন ছাড়াও আপনারা বিভিন্ন প্রোডাক্ট মার্কেটিং করেও, facebook পেজ থেকে ভালো পরিমাণের টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

তো ফেসবুক পেজে প্রোডাক্ট মার্কেটিং করার জন্য আপনাকে বিভিন্ন ই-কমার্স ওয়েবসাইটের সাথে সংযুক্ত হতে হবে। তাদের দেওয়া বিভিন্ন প্রোডাক্ট ফেসবুকে রিভিউ এর মাধ্যমে বিক্রি করতে হবে।

আর প্রতিটি প্রোডাক্ট বিক্রি করার বিনিময়ে যে পরিমাণে লভ্যাংশ আসবে। সে লভ্যাংশ থেকে আপনাকে নির্দিষ্ট পরিমাণের কমিশন প্রদান করবে।

আমরা আগেই বলেছি ফেসবুক থেকে টাকা আয় করার অসংখ্য উপায় রয়েছে। এখন আপনার কাছে যদি একাধিক ফেসবুক পেজ থাকে, সে ফেসবুক পেজে পর্যাপ্ত পরিমাণের অডিয়েন্স থাকলে, আপনারা সেই ফেসবুক পেজগুলো ভালো দামে, বিভিন্ন মার্কেটপ্লেস এ বিক্রি করতে পারবেন।

মোবাইল দিয়ে টাকা আয় করার ওয়েবসাইট

বর্তমান সময়ের সব থেকে সম্মানজনক একটি কাজের নাম হলো কন্টেন্ট রাইটিং। আপনি যদি একজন মোবাইল ইউজার হয়ে থাকেন। সেই সাথে লেখালেখি করতে পছন্দ করেন।

তাহলে আমি আপনাকে পরামর্শ দিব, মোবাইল দিয়ে টাকা আয় করার জন্য, বাংলাদেশি জনপ্রিয় একটি ওয়েবসাইট বেছে নিতে পারেন আর্টিকেল রাইটিং জব করার জন্য।

আমাদের জানামতে বাংলাদেশ জনপ্রিয় একটি বাংলা ব্লগ ওয়েবসাইট হলো- blog.jit.com.bd.

আপনারা কোন প্রকার টাকা ইনভেস্ট করা ছাড়াই মোবাইল দিয়ে টাকা আয় করার সুযোগ পেয়ে যাবেন এই ওয়েবসাইটে। তো আপনি যদি অনলাইন সেক্টরে লেখালেখি করতে নতুন হয়ে থাকেন।

সেক্ষেত্রে এই ওয়েবসাইটে কিভাবে আর্টিকেল লিখতে হয়। সে বিষয়ে বিস্তারিত ধারণা পেয়ে যাবেন। তারপর, সে ধারনা অনুযায়ী আর্টিকেল লেখার বিনিময়ে প্রতিদিন ইনকাম করতে পারবেন।

তো এই ওয়েবসাইটে একটি অ্যাকাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করার জন্য, আপনাকে নিচে দেওয়া তথ্যগুলো পূরণ করতে হবে। যেমন-

  1. প্রথমে এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে হবে blog.jit.com.bd.
  2. Name .
  3. Username .
  4. E-mail Address .
  5. Password.
  6. Confirm Password.
  7. Register.

আপনারা সঠিকভাবে এর তথ্যগুলো পূরণ করার পরে, রেজিস্টার বাটনে ক্লিক করলে, আপনার নিজের নামে একটি ড্যাসবোর্ড চালু হয়ে যাবে।

তারপর কি কি বিষয়ে আর্টিকেল লিখে ইনকাম করতে পারবেন। সেখানে ক্যাটাগরি দেওয়া রয়েছে। সেই ক্যাটাগরির অনুযায়ী আপনারা আর্টিকেল লিখে প্রতিদিন ৫০০ টাকা থেকে অন্তত ৭০০ টাকা পর্যন্ত ইনকাম করার সুযোগ পাবেন।

এছাড়া আর্টিকেল লেখার পাশাপাশি আপনারা বন্ধুদের রেফার করার মাধ্যমেও বিশ পার্সেন্ট পর্যন্ত কমিশন ইনকাম করতে পারবেন।

অন্যদিকে আপনি যদি মোবাইল দিয়ে টাকায় করার ওয়েবসাইট খোঁজেন। সে ক্ষেত্রে, আপনি নিজের ব্যক্তিগত একটি ওয়েবসাইট ব্লগার প্ল্যাটফর্ম দ্বারা একদম বিনামূল্য তৈরি করে, আর্টিকেল লিখে, গুগল এডসেন্স দ্বারা ইনকাম করার সুযোগ পেয়ে যাবেন।

শেষ কথাঃ

তো বন্ধুরা আপনার যারা মোবাইল দিয়ে টাকা ইনকাম করার উপায় খোঁজছিলেন। তাদের সুবিধার্থে আমরা এখানে মোবাইল দিয়ে টাকা ইনকাম করার জন্য, সেরা কিছু মাধ্যম জানিয়ে দিয়েছি।

আপনি যদি উপরে দেওয়া প্লাটফর্ম গুলোতে কাজ করতে আগ্রহে থাকেন। তাহলে প্রতিদিন ৭০০ টাকা পর্যন্ত আয় করার সুযোগ পাবেন।

তো সর্বশেষ আপনাকে বলতে চাই আমাদের আর্টিকেলটি যদি আপনার কাছে ভালো লেগে থাকে। তাহরে অবশ্যই একটি কমেন্ট করে জানিয়ে দিবেন।

আর সেই সেঙ্গ আর্টিকেলটি আপনার বন্ধুদেরকে একটি শেয়ার করে দিবেন।

ধন্যবাদ।

Advertisement

Leave a Comment